আকাশ কি সত্যিই পৃথিবীর উপর পতিত হতে পারে?

বৈজ্ঞানিক অসামাঞ্জস্য বিষয়ক অভিযোগের জবাব



 

মূলঃ Islamweb

অনুবাদঃ মুহাম্মাদ মুশফিকুর রহমান মিনার

 

প্রশ্নঃ

বিসমিল্লাহ। আমার একটি প্রশ্ন ছিল। আল্লাহ কেন সুরা হজ এর ৬৫ নং আয়াতে বললেন – “...এবং তিনিই আকাশকে ধরে রাখেন যাতে তা পৃথিবীর উপর তাঁর অনুমতি ছাড়া পতিত না হয়  ...” ? এটা তো অসম্ভব ব্যাপার যে আকাশ পৃথিবীর উপর পতিত হবে। আমাকে ব্যাপারটি বুঝতে সাহায্য করুন। ধন্যবাদ।

 

উত্তরঃ 

যাবতীয় প্রশংসা আল্লাহর যিনি জগতসমূহের মালিক। আমি সাক্ষ্য দিচ্ছি যে, আল্লাহ ছাড়া কোনো সত্য উপাস্য নেই। এবং মুহাম্মাদ (ﷺ) তাঁর বান্দা ও রাসুল।

 

আমরা নিশ্চিত নই কেন আপনি ভাবছেন যে আকাশের পৃথিবীর উপর পতিত হওয়া অসম্ভব, যেখানে আমরা প্রায়ই পৃথিবীর উপর উল্কাপাত হতে দেখি। এ ছাড়াও আমরা সময়ে সময়ে ধুমকেতুর আগমন দেখি, যার মধ্যে অনেকগুলোই বিশাল আকৃতির। এর মধ্যে কোনোটি যদি পৃথিবীর উপর পতিত হয়, তাহলে তা পৃথিবীর মানুষের জন্য ভয়াবহ দুর্যোগের কারণ হবে।

 

কুরআনে “তিনিই আকাশকে ধরে রাখেন যাতে তা পৃথিবীর উপর তাঁর অনুমতি ছাড়া পতিত না হয়” – এ দ্বারা বোঝানো হয়েছে যে, বিভিন্ন মহাজাগতিক বস্তু এবং গ্রহকে পৃথিবীর উপর পতিত হওয়া থেকে বিরত রাখা। আল্লাহ তাঁর বান্দাদের প্রতি অনুগ্রহবশত এদেরকে পৃথিবীর উপর আছড়ে পড়া থেকে বিরত রাখেন। আল্লাহ যদি চাইতেন, তাহলে এগুলোকে পৃথিবীর উপর পড়তে দিতে পারতেন।

 

আল্লাহ বলেছেন,

أَفَلَمۡ يَرَوۡاْ إِلَىٰ مَا بَيۡنَ أَيۡدِيهِمۡ وَمَا خَلۡفَهُم مِّنَ ٱلسَّمَآءِ وَٱلۡأَرۡضِۚ إِن نَّشَأۡ نَخۡسِفۡ بِهِمُ ٱلۡأَرۡضَ أَوۡ نُسۡقِطۡ عَلَيۡہِمۡ كِسَفً۬ا مِّنَ ٱلسَّمَآءِۚ إِنَّ فِى ذَٲلِكَ لَأَيَةً۬ لِّكُلِّ عَبۡدٍ۬ مُّنِيبٍ۬ (٩)

 

অর্থঃ “তারা কি তাদের সামনে ও তাদের পেছনে আকাশ ও পৃথিবীতে যা আছে তার প্রতি লক্ষ্য করে না? যদি আমি ইচ্ছা করি তাহলে তাদেরকে সহ ভূমি ধসিয়ে দেব অথবা আকাশ থেকে এক খণ্ড তাদের উপর নিপতিত করব, অবশ্যই তাতে রয়েছে আল্লাহমুখী প্রত্যেক বান্দার জন্য নিদর্শন।”

(আল কুরআন, সাবা ৩৪ : ৯)

 

ইবন আশুর(র.) তাঁর তাফসিরে (আত তাহরির ওয়াত তানওয়ির) বলেছেন, “ “অথবা আকাশ থেকে এক খণ্ড তাদের উপর নিপতিত করব” – এই কথার অর্থ হচ্ছে, এক খণ্ড মহাজাগতিক বস্তু (পতিত হওয়া)।”

[বক্তব্য সমাপ্ত]

 

আল্লাহই সর্বোত্তম অবগত।

 

মূল লেখার লিঙ্কঃ http://www.islamweb.net/emainpage/index.php?page=showfatwa&Option=FatwaId&Id=373417